সাংবাদিক মরহুম মোয়াজ্জেম হোসেন নান্নু ভাইয়ের স্ত্রী শাহীনা হোসেন পল্লবী স্বামী খুনের অভিযোগে প্রায় তিন মাস ধরে জেলে বন্দী

দৈনিক আমাদের সময় পত্রিকার প্রিয় ক্রাইম রিপোর্টার হাসান জাভেদ ভাইয়ের কাছে থেকে শুনলাম, দৈনিক যুগান্তরের অপরাধ বিভাগের প্রধান ও বাংলাদেশ ক্রাইম রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের (ক্র্যাব) সাবেক সাধারণ সম্পাদক মোয়াজ্জেম হোসেন নান্নু ভাইয়ের স্ত্রী শাহীনা হোসেন পল্লবী স্বামী খুনের অভিযোগে প্রায় তিন মাস ধরে জেলে বন্দী।

পরে নান্নু ভাইয়ের ভাই ইকবাল ভাই এবং হত্যা মামলার বাদী নজরুল ভাইয়ের সাথেও অনেকক্ষন কথা বললাম। উনি জানালেন যে,মামলা দায়ের করার সময়ে সাংবাদিকদের অনেকে সহয়তার কথা বলেছিলেন।

কিন্তু উনি সেই রকম সহয়তা পাননি। উনার বয়স প্রায় আশি বছর। সেই যশোর থেকে মামলার তদারকির জন্য উনার পক্ষে নিয়মিত ঢাকা আসা সম্ভব না। এছাড়া নান্নু ভাইয়ের কোটিপতি স্ত্রী শাহীনা হোসেন পল্লবীর সাথে উনি লড়াই করতে পারবেন না। কারন উনি দরিদ্র লোক।

তাই বাধ্য হয়ে মামলা চালাবেন না এই মর্মে একটি এফেডিফেট দিয়েছেন। আসামীদের কাছে থেকে ১ লক্ষ টাকা পাওয়ার কথা থাকলেও উনি কয়েক কিস্তিতে মাত্র ৭০/৭৫ হাজার টাকা পেয়েছেন।

আগামী ১২ জুন নান্নু ভাইয়ের রহস্যজনক মৃত্যুতে আমরা উনার সহকর্মী যারা আছি তাঁরা  ফেসবুক শোঁকে ভাসিয়ে ফেলবো।কিন্তু তাঁর খুনের কোন বিচার হবে না,চ্যালেঞ্জ করলাম।

কারন যত বড় সাংবাদিকই হোন না কেন,অসুস্থ কিংবা মারা গেলে বাতিল মাল!

দৈনিক যুগান্তর পত্রিকায় উনার জীবনের শেষ প্রতিবেদন ছিল রেড জোন’ পূর্ব রাজাবাজার: দিনের আলোয় রাতের নীরবতা শীর্ষক প্রতিবেদন। মরে গেয়ে উনি সারা জীবনের জন্য নিরবতার রাজ্যে চলে গেলেন। আমি,আপনি সবাই একদিন নিরবতার গভীর অন্ধকারে চলে যাবো।

হাবিবুল্লাহ মিজান,বিশেষ প্রতিবেদক, দি ডেইলি বাংলাদেশ পোস্ট, ঢাকা

 

 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here